বাংলাদেশি ছেলের বানানো পোস্টার শাহরুখ খানের ‘মান্নাত’এ।

0
183

বাংলাদেশি ছেলের বানানো পোস্টার শাহরুখ খানের ‘মান্নাত’এ

মুম্বাইয়ের পশ্চিম বান্দ্রার মাউন্ট মেরী রোডে অবস্থিত বলিউড বাদশা শাহরুখ খানের বিলাসবহুল বাড়ি ‘মান্নাত’, যেখানে প্রায় প্রতিদিনই হাজারো ভক্তের ভিড় দেখা যায়।

এবার তার বাড়ির সামনে এবং শাহরুখের বাড়ির রোডের আশে পাশে দেখা গেলো তার নতুন সিনেমা ‘পাঠান’লুকের একটি পোস্টার, যেটি বানিয়েছেন বাংলাদেশের মাহাদী রহমান তিলক।

শুক্রবার সকালেই মুম্বাইতে অবস্থান করা এক শাহরুখ ভক্ত মাহাদীর বানানো পোস্টারগুলো প্রিন্ট করে ‘মান্নাত’ এর সামনে নিয়ে যান। আর সে ছবিগুলো ইতিমধ্যে শাহরুখের ফ্যান ক্লাবগুলোতে ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক,ইনস্টাগ্রাম ও টুইটারে।

এ বিষয়ে তরুণ ডিজাইনার এবং শাহরুখের ডাই হার্ট ফ্যান মাহাদী রহমান তিলক বলেন, আমি শাহরুখ খানের ভীষণ ভক্ত। শুধুমাত্র ভালো লাগা ও ভালোবাসার জায়গা থেকে তার জন্য এ কাজগুলো করা।

শাহরুখের জন্মদিনে আমার বানানো ‘পাঠান’ লুকের কিছু পোস্টার ব্যাপক ভাইরাল হয়। ইনস্টাগ্রাম ও টুইটারে শাহরুখের বড় বড় ফ্যান গ্রুপ যেমন- শাহরুখ খান ফ্যান ইউনিভার্স সহ আরও বড় বড় গ্রুপে ভাইরাল হয়। ওই সময় আমার বানানো পোস্টারগুলো নিয়ে মুম্বাইয়ে থাকা কয়েকজন শাহরুখ ভক্ত ‘মান্নাত’ এর সামনে গিয়েছিলো।

মুম্বাইয়ে থাকা বেশ কয়েকজন শাহরুখ ভক্তের সঙ্গেই আমার নিয়মিত কথা হয়। তাদের মাধ্যমেই আমার বানানো পোস্টার ‘মান্নাত’ পর্যন্ত পৌঁছাতে পেরেছে। এতটুকুতেই আমি খুব খুশি। আমার পোস্টার শাহরুখ খান কিংবা তার টিমের কেউ দেখেছে কি না জানি না তবে এতটুকু নিশ্চিত যে অনেকেই সেটা দেখেছে।

কারণ ‘পাঠান’ এর ফ্যান মেইড পোস্টার সবচেয়ে বেশি ভাইরাল হয়েছে তিনটা, যার একটা মরক্কোর এক ভক্ত আর আরেকটা পাকিস্তানের এক ভক্তের বানানো। তাদের সঙ্গে আমারটাও অনেক ভাইরাল হয়েছে। অনেকেই এই পোস্টার ব্যবহার করে সিনেমার প্রমোশন করছে দেখলাম।

আমাকে মুম্বাইয়ের অনেকে মাহাদী জিএফএক্স নামে চেনে। কিছুদিন আগে কলকাতার আনন্দবাজার পত্রিকা আমার বানানো পোস্টার ব্যবহার করে পাঠান সিনেমার নিউজ করেছিলো।

আমার বিশ্বাস পোস্টারগুলো তাদের টিমের অনেকেই দেখেছেন। কারণ, মুম্বাইতে ‘মান্নাত’ এর সামনে অবস্থান করা ভক্তদের কথার মাধ্যমে আমার এমনটা মনে হয়েছে।

এছাড়াও ‘পাঠান’ সিনেমার সহকারী সিনেমাটোগ্রাফার রাজভীর আসারের সঙ্গে আমার কিছু কথা হয়েছিলো, উনি দেখেছিলেন। তেমন বেশি কথা না হলেও তিনি আমাকে সিনেমাটির আপডেট সম্পর্কে জানাতেন।

মাহাদী রহমান তিলক মাদারীপুরের ছেলে, এখন ঢাকার মিরপুরে থাকেন। তিনি দশম শ্রেণির ছাত্র। ডিজাইনিং নিয়ে তার নেশা অনেক ছোটবেলা থেকেই। ২০১৬ সাল থেকেই তিনি এগুলো শিখে আসছেন।

তিনি এম রাহিম পরিচালিত ‘শান’ সিনেমার অফিশিয়াল পোস্টার বানিয়েছেন। এছাড়াও প্রায় ১০/১২ টি নাটকের পোস্টার ডিজাইন করেছেন। এর বাইরে ফ্যান মেইড পোস্টার তৈরি করেছেন শতকেরও বেশি।

BÌNH LUẬN

Please enter your comment!
Please enter your name here